বুধ. এপ্রি ১৪, ২০২১

Fortune News 24

ফরচুন নিউজ ২৪

না বুঝে’ কমেন্ট শেয়ারের ভয়ঙ্কর পরিণতি, ব্যাপক প্রশংসিত ‘ভাইরাল গার্ল’ (ভিডিও)

১ মিনিট পাঠের সময়

সোশ্যাল মিডিয়ার যেমন সুফল রয়েছে, তেমনি আছে কুফল। না বুঝে কমেন্ট বা শেয়ার একজন মানুষের জীবনে বয়ে আনে ভয়ঙ্কর পরিণতি! ভেঙে চুরমার হয়ে যায় সাজানো স্বপ্ন। শুধু একজন ব্যক্তি নয়, সেই সঙ্গে তার পরিবারের মানুষরা বিভিন্নভাবে ভোগান্তিতে পড়ছেন। মুহুর্তেই সবকিছু এলোমেলো করে দিতে ‘না জেনে-বুঝে’ একটি মন্তব্য ও শেয়ারই যথেষ্ট!

স্ক্রিনে এমন ভিকটিমের চরিত্রে অভিনয় করেছেন লাক্সতারকা মেহজাবীন চৌধুরী।এমন এক বাস্তব চিত্র নাটকের মাধ্যমে তুলে এনেছেন সময়ের আলোচিত নির্মাতা কাজল আরেফিন অমি।

তার নতুন নাটক ‘ভাইরাল গার্ল’ দেখে মানুষের বিবেককে নাড়া দিচ্ছে। নাটকটি প্রকাশের পরেই প্রশংসার ঝড় উপভোগ করছেন ‘ব্যাচেলর পয়েন্ট’-খ্যাত নির্মাতা অমি। এ নির্মাতার বেশিরভাগ নাটক রোমান্টিক-কমেডি ধাঁচের হলেও এবার তিনি শিক্ষামূলক কাজ দর্শকদের সামনে এনেছেন। দর্শক জানাচ্ছেন, পরিচালক অমির ‘ওয়ান অব দ্য বেস্ট’ নাটক হচ্ছে ‘ভাইরাল গার্ল’।

মাত্র দুই দিনে লাইভ টেকের ইউটিউব চ্যানেল থেকে ‘ভাইরাল গার্ল’ দেখেছেন প্রায় ১২ লাখ দর্শক, মন্তব্য চোখে পড়েছে ৬ হাজারের বেশি! যেটি রীতিমত অবাক করার মতো।

হাজার হাজার মন্তব্যে দেখা গেছে ব্যাপক প্রশংসা। অনেকেই অভিনেত্রী মেহজাবীনের অভিনয়ের বাহবা দিচ্ছেন। তবে সবচেয়ে প্রশংসা পাচ্ছেন নির্মাতা অমি। এমন সময়োপযোগী কনসেপ্ট নিয়ে কাজ ও সামাজিক সচেতনার বার্তায় ‘ভাইরাল গার্ল’ নাটকটি পরিচালক অমিকে সচেতন দর্শকরা ‘সেলুট’ জানাচ্ছেন।

চ্যানেল আই অনলাইনের সঙ্গে আলাপে কাজল আরেফিন অমি বলেন, নাটক পপুলারিটি পেতে কমেডি, রোম্যান্টিক হতে হবে এমন কোনো কথা নেই। গল্পটা মানুষের আপন হলে, গল্পের সঙ্গে কানেক্ট হতে পারে তাহলেই কাজটা পপুলারিটি পায়। সেটা হোক সিরিয়াস, কমেডি বা রোম্যান্টিক। ‘ভাইরাল গার্ল’ দিয়ে বিষয়টি আরও ভালোভাবে বুঝলাম। মানুষ যেমন প্রশংসা করছেন, তেমনি সচেতনও হচ্ছেন। এত অল্প সময়ে মিলিয়ন ভিউস অতিক্রম করাটাও সৌভাগ্যের বিষয় বলে মনে করি।

তিনি বলেন, আমি বিভিন্ন ধরনের গল্প বলতে চাই। বলার চেষ্টা করি। মানুষ আমার কাজগুলো দেখে পছন্দ করেন। এতে করে নতুন কাজ করতে উৎসাহিত হই। ‘ভাইরাল গার্ল’ দর্শক গ্রহণ করেছেন বলেই আমাদের পুরো টিমের পরিশ্রম স্বার্থক হয়েছে।

‘ভাইরাল গার্ল’ নাটকটি প্রযোজনা করেছে আইটি প্রতিষ্ঠান লাইভ টেকনোলজিসের টার্ন কমিউনিকেশন। নাটকের গল্প ও চিত্রনাট্য পরিচালক অমির নিজের। আরও অভিনয় করছেন মনোজ, শাহেদ আলী সুজন, মিলি বাশার, রাজু সরকার, রকি খান, রত্না খান।