সোম. সেপ্টে ২৭, ২০২১

Fortune News 24

ফরচুন নিউজ ২৪

ফরচুন বরিশাল কে ১৫২ রানের লক্ষ্য ছুঁড়ে দিল চট্টগ্রাম

১ মিনিট পাঠের সময়

মিরপুরে টস জিতে আগে ফিল্ডিংয়ের সিদ্ধান্ত নেন ফরচুন বরিশালের অধিনায়ক তামিম ইকবাল। আগের দুই ম্যাচে উদ্বোধনী জুটিতে দলকে দারুণ শুরু এনে দেওয়া লিটন দাস এবং সৌম্য সরকার এই ম্যাচে বড় জুটি গড়তে ব্যর্থ হয়েছেন। দলীয় ২২ রানে আবু জায়েদের বলে ব্যক্তিগত ৫ রান করে আউট হয়ে সাজঘরে ফিরেন সৌম্য সরকার।

আগের দুই ম্যাচের মতো এই ম্যাচেও ব্যাট হাতে রান পান লিটন। গাজী গ্রুপ চট্টগ্রামের অধিনায়ক মোহাম্মদ মিঠুনকে নিয়ে দলীয় সংগ্রহ বাড়াতে থাকেন লিটন। তবে ক্রিজে সেট হয়ে বড় রান করতে ব্যর্থ হয়েছেন মিঠুন। সুমনের বলে ব্যক্তিগত ১৭ রান করে আউট হন তিনি।

ব্যাট হাতে দারুণ ছন্দে থাকা লিটনও থেমে যান ব্যক্তিগত ৩৫ রান করে। মেহেদী মিরাজের বলে কামরুল হাসানের ক্যাচ দিয়ে সাজঘরে ফিরেন তিনি। লিটনের বিদায়ের পর চট্টগ্রামের হাল ধরার চেষ্টা করেন শামসুর রহমান। তবে বড় হয়নি শামসুর-মোসাদ্দেকের জুটি। দলীয় ৯৬ রানে কামরুলের বলে থামে এই দুই ব্যাটসম্যানের জুটি।

সাজঘরে ফেরার আগে ২৮ বলে ২৬ রান করেন তিনি। বরিশালের বোলারদের নিয়ন্ত্রিত বোলিংয়ে রানের গতি কিছুটা কমে চট্টগ্রামের। টাইম আউটের পর আবু জায়েদের বলে আউট হন জিয়াউর। শেষদিকে আগ্রাসী ব্যাট করেন  মোসাদ্দেক হোসেন এবং সৈকত আলী। আবু জায়েদের এক ওভারে ১৯ রান নেন সৈকত আলী।

শেষ ওভারে তাসকিনের বলে ২৮ রান করে আউট হন মোসাদ্দেক। শেষ পর্যন্ত রানে ইনিংস থামে চট্টগ্রামের। শেষ পর্যন্ত ১১ বলে ২৭ রান করেন সৈকত আলী এবং ৮ রান করে অপরাজিত থাকেন নাহিদুল। বরিশালের হয়ে সর্বোচ্চ দুটি উইকেট নেন আবু জায়েদ এবং একটি করে উইকেট নেন তাসকিন, সুমন, মিরাজ এবং কামরুল।

সংক্ষিপ্ত স্কোরঃ

গাজী গ্রুপ চট্টগ্রাম ১৫১-৭ (ওভার ২০)

লিটন ৩৫, মোসাদ্দেক ২৮, সৈকত ২৭: আবু জায়েদ ২-৪২